তুলসীর গুণাগুণ

তুলসীর গুণাগুণ

তুলসীকে বলা হয় ভেষজের রানী । এই ছোট পাতাটি সমাধান করে দেয় আপনার অনেকগুলো স্বাস্থ্য সমস্যার । ত্বকের ব্রণ দূর করা থেকে শুরু করে মরণব্যাধি ক্যান্সার প্রতিরোধেও কার্যকর তুলসী পাতা । প্রতিদিন একটি মাত্র তুলসী পাতা আপনাকে দূরে রাখবে ৭টি অসুখ থেকে।

১। ব্রণ দূরীকরণে

ব্রণ এবং ব্রণের দাগ দূর করতে তুলসী পাতার নেই কোন জুড়ি ।কারণ এর অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি ফাঙ্গাল উপাদান ব্রণের ইনফেকশন দূর করে দেয়। চন্দনের গুঁড়োর সাথে নিমের পেস্ট এবং গোলাপ জল মিশিয়ে নিন আর এটি ব্রণের উপর ব্যবহার করুন।

২। মাথাব্যথা দূর করতে

মাথাব্যথা আমাদের কাছে  খুব পরিচিত একটা রোগ। মাথাব্যথা অল্প থেকে শুরু হলেও তা খুব তাড়াতাড়ি তীব্রতা ধারণ করে। তুলসীপাতা আপনাকে সাহায্য করবে এই মাথাব্যথা দূর করতে । এতে রয়েছে শক্তিশালী প্রাকৃতিক গুণাগুণ যা খুব সহজেই মাথাব্যথা দূর করে থাকে। শুধু তাই নয় মাইগ্রেন, সাইনাস, কারণে হওয়া মাথাব্যথাও দূর হতে পারে কেবল প্রতিদিন একটি তুলসীপাতা খেলে।

৩। ডায়াবেটিস প্রতিরোধে

তুলসী পাতায় রয়েছে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট, মিথাইল, ইউজিনল উপাদান । যা রক্তে চিনির মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে থাকে । আবার শরীরে প্রয়োজনীয় ইনসুলিনও উৎপাদন করে থাকে।

৪। কাশি দূর করতে

কাশি দূর করতে বেশ কার্যকর তুলসী পাতার রস । সকালে এক গ্লাস পানির সঙ্গে তুলসীপাতা কফ দূর করতে সাহায্য করবে।এতে বিদ্যমান  এক্সপেকটোরেন্ট উপাদান বুকের শ্লেষ্মাকে বের করে দেয়।

৫। কিডনি পাথর দূরে

কিডনি পাথর দূর করতে সাহায্য করে তুলসীপাতা। প্রতিদিন সকালে খালি পেটে তুলসী পাতা খাওয়ার অভ্যাস করুন। এটি প্রাকৃতিকভাবে কিডনি পাথর দূর করে দেবে।

৬। ক্যানসার প্রতিরোধে

তুলসী পাতায় রয়েছে অ্যান্টি অক্সিডেণ্ট উপাদান যা স্তন ক্যানসার এবং ওরাল ক্যানসার প্রতিরোধ করে। এর রস রক্ত সঞ্চালন বজায় রাখে যা টিউমার হওয়া প্রতিরোধ করে থাকে।

৭। জ্বর সারাতে

জ্বর আসলে কয়েকটি তুলসী পাতা চিবিয়ে খান। এটি দিনে তিনবার খান। কিছুক্ষণের মধ্যে কমে যাবে জ্বর।